অজিত কুমার দত্ত (জন্ম: ২৩ সেপ্টেম্বর, ১৯০৭ – মৃত্যু: ৩০শে ডিসেম্বর, ১৯৭৯) বিশিষ্ট বাঙালি কবি, সাহিত্যিক, প্রাবন্ধিক এবং অধ্যাপক।

অজিত দত্তের এর জীবনী

জন্ম 

অজিত দত্ত ১৯০৭ সালের ২০ নভেম্বর ঢাকার বিক্রমপুরে (বর্তমান মুন্সিগঞ্জ জেলা) এক অভিজাত পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। মাত্র চার বছর বয়সে তার পিতা অতুলকুমার দত্ত মারা যান। তার মা হেমালিনী দেবী ছিলেন সাহিত্য অনুরাগী।

অজিত দত্তের এর সংক্ষিপ্ত জীবনী

১৯০৭ খ্রিস্টাব্দে অধুনা বাংলাদেশের রাজধানী শহর ঢাকার কিছু দূরে বিক্রমপুরে কবি অজিত দত্তের জন্ম হয়। মেধাবী অজিত দত্ত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বাংলা ও সংস্কৃতে এমএ পরীক্ষায় প্রথম শ্রেণিতে প্রথম হন। কলকাতার রিপন কলেজিয়েট স্কুলে তাঁর কর্মজীবন শুরু হয়। এরপর চন্দননগর, বারাসাত, প্রেসিডেন্সি কলেজে এবং দবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ে তিনি অধ্যাপনা করেছেন। এ ছাড়াও বন্ধু বুদ্ধদেব বসুর সঙ্গে | প্রথমে প্রগতি পত্রিকা সম্পাদনা করেন। পরে কল্লোল গোষ্ঠীতে যোগ দেন। কবিতা পত্রিকার শুরু থেকেই তিনি ছিলেন তার অন্যতম লেখক। তাঁর বিখ্যাত কাব্যগ্রন্থগুলি হল—কুসুমের মাস’, ‘পাতাল কন্যা’, ‘নষ্ট চাঁদ’, ‘পুনর্ণবা’, ‘ছড়ার বই’, ‘ছায়ার আলপনা’, ‘জানালা’, ‘সাদা মেঘ’, ‘কালো পাহাড়’ প্রভৃতি। তাঁর গবেষণাধর্মী প্রবন্ধ গ্রন্থটি হল—’বাংলা সাহিত্যে হাস্যরস’। ১৯৭৯ খ্রিস্টাব্দে এই বিশিষ্ট কবি ইহলোক ত্যাগ করেন।

মৃত্যু

১৯৭৯ সালে ৩০ ডিসেম্বর তিনি তার কলকাতার ২০ রাসবিহারী এভিনিউ এর বাড়িতে পরলোক গমন করেন।